ভুমিপুত্র ঐক্যমন্চের আন্দোলন নিয়া বিজয়চন্দ্র বর্মন বাবু নোমায়, মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রীর প্রতিক্রিয়া কি? 

Posted by
আইজকার উত্তরবঙ্গ সংবাদপত্র পেপারত শ্রী বিজয়চন্দ্র বর্মন বাবুর বক্তব্য ছিল কেপিপি নেতা শ্রী অতুল রায় আর  জিছিপিএ নেতা শ্রী বংশীবদন বর্মন আলদা রাজ্য ও এনআরসির সমর্থনে ক্যা আন্দোলন করির ধৈরচে? উমরা তো দোনেজনে তৃণমূল সরকারের পদত আছে। একজন কামতাপুরী ভাষা অ্যাকাডেমিত আর একজন রাজবংশী ডেভেলপমেন্ট বোর্ডত (সমিতি কওয়া যায় কারন Society Act এর আওতাত) 
 
কতা হৈল্ সরকারত থাকিয়াও সরকারের ইস্যু ভিত্তিক মতের বিরোধিতা করা যাইবে না এই জিনিসটা কোনোটে ল্যাখা আছে? না ল্যাখা নাই কারন গনতন্ত্রত কাংও কারো মুখ চিপি ধরির পায় না একমাত্র বিগত বাম সরকারক হয়ত স্পেশাল পার্মিশন দিচিল কাংও! আর তৃণমূল যেদু এই আন্দোলনের ব্যাপারটাক সহ্য করির না পায় তালে দোনেজনক অ্যাকাডেমি আর ডেভেলপমেন্ট বোর্ড থাকি বির করি দেউক। কিন্তুক এই মুহুর্তত অবস্থা খারাপ বুলি মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রীও হয়ত চুপ করি আছে, সমায় আসিলে যে খ্যাদাইবে না তার কি গ্যারান্টি আছে? 
বিজয়চন্দ্র বর্মন বাবুর এই ভয়টা আছে যে সরকারত রয়া সরকারের মতের বিপরীতে গেইলে খ্যাদে দিবারও পায় অথবা এসজেডিএর পদ থাকে নামে দিবারও পায়। 
 
রাজবংশী ভাষা অ্যাকাডেমি থাকি বিজয়চন্দ্র বর্মন বাবু যে পদত্যাগের করিচে এই খবরটা কয়জন জানে? হঠাৎ করি কি হৈল্ যে ভাষা অ্যাকাডেমি থাকি পদত্যাগ করিলেন? এই পদটা নিশ্চই বংশীবদন বাবুক অফার করিচে কলিকাতা সরকার আর তোমাক পদত্যাগ করির কৈচে। কারন তোমরা তো উমারে কথাতে বৈসেন আর উমারে কথাতে ওঠেন যা মনে হয়। একে ভাষা, এদি বংশীবাবুক রাজবংশী ভাষা অ্যাকাডেমির পদ আর ওদি অতুল বাবুক কামতাপুরী ভাষা অ্যাকাডেমির পদ দিয়া মানষির ভিতরা বিভাজন কৌশল (রাজনৈতিক লেভেলত) করির ধৈরচেন । কলিকাতার বুদ্ধি তোমার ভিতরা ঢোকে ঠিকে কিন্ত তোমরা তার প্রতিবাদ করির পান না। সেই সৎসাহসে নাই মনে হয়। 
 
কি কারনে রাজবংশী ভাষা অ্যাকাডেমির পদ থাকি পদত্যাগ নিচেন এইটা হামার খুব জানার ইচ্ছা, উত্তরবঙ্গ সংবাদ পেপারক যদি জানান খুব ভাল হয়। সগায় জানির পাই তাহইলে। 
 
বিজয়চন্দ্র বর্মন বাবু তোমরা ভোটোত খাড়া হন রাজবংশী প্রতিনিধি হয়া আর ভোটোত জিতিলে সেলা সগারে হয়া যান তাতে রাজবংশীর যেদু বাঁশও হয় কোনো ব্যাপারনা। এই জিনিসটায় তো বোঝা গেইল্না তোমার নাকান আরো যেসকল নেতালা আছে উমরাও ঐ পথের পথিক।
 
উপরা থাকি তোমারলার উপরা কী এমন চাপ আইসে যে তোমারলার মুখ দিয়া কতা বিড়ায় না। তোমারলার সংসার, বেটার পড়াশুনা, দৈনন্দিন বাজারঘাট নিশ্চয়ই এই রাজনৈতিক পদত থাকির জন্যে চলে না যে পদ চলি গেইলে সংসার চলা ধাউ হয়া যাইবে।
 
কুচবিহারের এমজেএন হাসপাতালের নাম পরিবর্তন হৈল্ – তোমরা চুপ করি রৈলেন।
 
ইতিহাস ঐতিহ্য লুন্ঠিত হবার ধৈরচে তোমরালা চুপ।
 
অর্থনৈতিক ভাবে ভুমিপুত্র মানষির কেংকরি উন্নতি করা যায় সেই ব্যাপারে তোমার কোনো ভুমিকা প্রায় নাই কৈলেও চলে। 
 
উত্তরবঙ্গ সংবাদ বাছি বাছি তোমারলারে ইন্টারভিউ নেয় যেলা লোকাল নেতালা আন্দোলন করে বা ঐনাকান ভুমিপুত্র বিষয়ক কতা আইসে। যেলা কামতাপুরী ভাষা অ্যাকাডেমি হৈল্ রাজবংশী ভাষা অ্যাকাডেমির চেয়ারম্যান হয়া সেলা তোমার মন্তব্য ওটা মুই কিছু জানংনা, মুই কিছু কৈম না; আর যেলা লোকাল নেতালা আন্দোলনত নামে সেলা তোমরা এই কতাটা কবার পান না “মুই কিছু জানং না, মুই কিছু কৈমনা” সেলা মন্তব্য বিড়ায় মুখ দিয়া।
 
উত্তরবঙ্গ সংবাদ পেপারক অনুরোধ থাকিল এই ব্যাপারটাত য্যানে মাননীয়া মমতা ব্যানার্জির ইন্টারভিউ নেয় আর উমার প্রতিক্রিয়া কি সেইটা য্যানে পেপারত প্রকাশিত করে। কারন উত্তরবঙ্গের নেতালার প্রতিক্রিয়া দেওয়া না দেওয়া সমান, সে রাজবংশীই হোক আর অরাজবংশীই নেতাই হোক। ভাষা অ্যাকাডেমি দুইটা বন্ধ (বন্ধ নয় half murder, একে ভাষার দুইটা একাডেমী মানে – পঙ্গু করি দেওয়া) করার পরিকল্পনা থাকলে বা বিগত বাম আমলের নাকান বন্দুকের নল দিয়া ভুমিপুত্র মানষির আন্দোলন দমন করার পরিকল্পনাও যেদু থাকে সেইটা য্যানে পরিস্কার করে। 
Collected: Uttarbanga Sambad, date: 12/09/2019
Facebook Comments

Leave a Reply / Comment / Feedback