কেংকরি মাওয়ের দুধ ছাওয়ার বাদে সবথাকি ভাল্ । Mothers Milk is Best for your Baby

Posted by

🔰1st আগষ্ট থাকি 7th আগষ্ট এই 7 দিন “ওয়ার্ল্ড ব্রেস্ট ফিডিং সপ্তাহ” হিসাবে পালন করা হয় পত্তি বছর। ক্যা করা হয়? নিশ্চয়ই জানার দরকার আছে।

প্রধান কারন হৈল্ পোয়াতিলাক উৎসাহ দেওয়া যাতে ছাওয়ালার শরীল স্বাস্থ্য ভাল্ থাকে। আইজকা যায় ছাওয়া কালি উনায় সমাজের নাগরিক কাজেই ছাওয়ালা যেদু সুস্বাস্থ্যের অধিকারী নাহয় তালে সমাজ আগাইবে কেংকরি।

WHO (World Health Organisation) আর UNICEF (The United Nations Childrens Fund) এই দুই বিশ্বসংস্থা ছাওয়ালার আর পোয়াতিলার জন্যে কাজ করে, বিভিন্ন ওয়ার্কসপ আর ক্যাম্পেইন করে।

1. ম্যাটারনিটি লিভ (Paid) খুবে গুরুত্বপূর্ণ ছাওয়া আর মাওয়ের সুস্বাস্থ্যের জন্যে- এইটাও ক্যাম্পেইনিং এর বিষয়।

🔰কাচুয়া ছাওয়ার জন্যে আইডিয়াল নিউট্রিশন:

উবজন হওয়ার 6 মাস পর্যন্ত ব্রেস্ট ফিডিং ছাড়া অন্য কোনো দুধে চলিবে না (গরুর দুধ, কৌটার দুধে কন আর বার্লি কন, একদম না)।

ভগবানের মহিমা এই যে পোথোম 6 মাস বাচচা যে মাওয়ের দুধ খায় ইয়ার মধ্যত দুধের যা কম্পোজিসন সেইটা একদম আইডিয়াল থাকে। এমনকি এই কম্পোজিশন আপনে আপ পরিবর্তন হয় ছাওয়ার শরীলের দরকারের উপরা(যা কৌটার দুধত হয়না)। মানে ছাওয়ার যদি ঘন ঘন সর্দি কাশি হয় তালে ঐ দুধের কম্পোজিশন অটোমেটিক পরিবর্তন হৈবে যাতে ছাওয়ার রোগ ব্যধি সহ্য করার ক্ষমতা তৈরী হয়।

🔰উবজন হওয়ার পোথোম কয়দিন-

মাওয়ের দুধত – বেশী প্রটিন, কম সুগার আর বেনেফিসিয়াল কম্পাউন্ড থাকে। এই সমায় দুধ ঘন আর হলদিয়া হয় যাক কোলোস্ট্রাম কয়।

আর একটা কতা হৈল্ কাচুয়া ছাওয়ালাক সাকালের রৈদ খোয়ানোর কতা কয় শিয়ান মানষিলা।তার কারন হৈল্ এই যে ঘন হলদিয়া দুধ, ইয়ার মধ্যত Vitamin D কম থাকে বেশীর ভাগ সমায় যেটা মাওয়ের খাবারদাবারের উপরাও নির্ভর করে। এই ভিটামিন – ডি সূর্যের আলোর (UV B রশ্মি) সাহায্যে ছাওয়ার শরীলত যে কোলেস্টেরল থাকে তা থাকি তৈরী হয়।

🔰ব্রেস্ট ফিডিং এর কয়টা উপকারীতা:

1. শ্বাসযন্ত্রের ইনফেকশন প্রতিরোধ করে।

2. কানের ইনফেকশন প্রতিরোধ করে

3. সর্দি কাশি সহজে হয় না

4. * SIDS (Sudden infant death syndrome) – অচানক ছাওয়া মরি যাওয়ার আশঙ্কা অনেকটাই কমে।

5. গাট ইনফেকশন হওয়ার চান্ছ অনেকটাই কমায়।

6. প্যাটের রোগ, ছাওয়ালী লিউকোমিয়া এলার্জি জনিত রোগ সৌগে কমে।

7. ছাওয়ার বডি ওয়েট ঠিকঠাক রাখে।

8. ছাওয়ার চখু মুখত একটা ফূর্তি লক্ষ্য করা যায়।

ব্রেস্ট ফিডিং ওত খালি ছাওয়ার উপকার হয় না ছাওয়ার মাওয়েরও উপকার হয়।

1. ইউটেরাস কনট্রাক্ট তার আগের অবস্থাত আইসে। ব্রেস্ট ফিডিং এর সমায় অক্সিটোসিন হরমোন রিলিজ হয় বুলি।

2. পোয়াতির ডেপ্রেশন কমায়।

3. ব্রেস্ট ক্যানসার হওয়ার ঝুকি কমায়।

4. সমায় আর টাইম বাচে, এটাও একটা বড় ব্যাপার।

🔰ম্যাটিওর হিউম্যান মিল্ক কম্পোজিশন (4 সপ্তাহ পরবর্তী):

ফ্যাট – 3-5%

প্রোটিন – 0.8-0.9%

কার্বহাইড্রেট – 6.9 – 7.2%

এনার্জি – 60 – 75 KCal/100ml

🍼ইনফ্যান্ট ফরমূলা:

সোজা ভাষাত ছাওয়ার কৌটার দুধ। গরু অথবা ভৈসের দুধ অথবা গরু আর ভৈসের দুধের মিক্সার যার ভিতরা থাকি আংশিক ভাবে মিল্ক ফ্যাট দূর করা /যোগ করা হয় তার জাগাত ভেজিট্যাবল অয়েল (যার ভিতরাত পলি আনস্যাটুরেটেড ফ্যাটি অ্যাসিড) আর বিভিন্ন মিল্ক সলিডস দূর করা / যোগ করা হয়। DHA একটা গুরুত্বপূর্ণ উপাদান ব্রেইন ডেভেলপমেন্ট এর জন্যে। সবকিছু করার যোগ বিয়োগ করার পর ড্রাই করি পাউডার বানানো হয়। কোন উপাদান কতটা দেওয়া হৈচে এইটা কিন্তুক কৌটার উপরা অবশ্যই উল্লেখ থাকিবে। কতটা জল ফুটিয়া ঠান্ডা করি তার মধ্যত কয় চামুচ পাউডার দুধ দেওয়া খাইবে সেইটাও ল্যাখা থাকে। যা খুশি জল আর যা খুশি পাউডার ঢালিলং এমনটা বোল নাহয়, অমন করিলে ছাওয়ার ডেভেলপমেন্ট ঠিকঠাক হৈবে না।

কৌটার উপরা অবশ্যই এই কতাটা ল্যাখা খাইবে-

“MOTHERS MILK IS BEST FOR YOUR BABY


Facebook Comments

Leave a Reply / Comment / Feedback